মঙ্গলবার   ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ৬ ১৪২৬   ২৩ জমাদিউস সানি ১৪৪১

  যশোরের আলো
৮৩

ওজন যেভাবে কমাবেন

লাইফস্টাইল ডেস্ক:

প্রকাশিত: ৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

কর্মক্ষেত্রে বসে কাজ; কোনো রকম শারীরিক পরিশ্রম না করায় দিনে দিনে বাড়ছে ওজন। সেই সঙ্গে ফাস্টফুডের বিষয়টিও থাকে। এই বাড়তি ওজনের কারণে দেখতে যেমন আমাদের একটু কম সুন্দর লাগে, তেমনি শরীর হয় রোগের নানা বাসা। সে কারণে দৌড়াদৌড়ি করতে হয় চিকিৎসকের কাছে। 

শরীরের ওজন কমানোর জন্য আমরা কত কিছুই না করি! জিমে ভর্তি হই, নানারকম ডায়েটের শরণাপন্ন হই। তাও কমে না ওজন। যদিও কমে, সেটি বাড়তেও সময় লাগে না। তাই আমরা বিভিন্ন ডায়েটের পাশাপাশি যদি জীবনাচরণে কিছু বিষয় মেনে চলি, তাহলে দেখবেন দিন দিন ওজন যেমন বাড়বে না, তেমনি বাড়তি ওজন যা আছে তা কিছুটা কমেও যাবে।

বেশি ক্ষুধার্ত হয়ে না খাওয়া

খুব বেশি ক্ষুধার্ত হয়ে খাওয়ার অভ্যাস আমাদের অনেকেরই। অফিস বা ক্লাসের ফাঁকে খাওয়ার সময় নেই একদম। সঙ্গে কেউ নেই বা আশপাশে পছন্দমতো খাবারের দোকানও নেই- এ ধরনের সমস্যায় সহজেই সকাল, দুপুর বা রাতের খাবার বাদ দেন অনেকে, যা একদিকে স্বাস্থ্যের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ, অন্যদিকে এতে ওজন বাড়তে থাকবে দ্রুত। কারণ শরীর আপনার কাছ থেকে সেই ক্ষুধার্ত অবস্থার খাবার অপুষ্টিকর খাবার দিয়ে পুষিয়ে নেবে।

শরীর বুঝে ব্যায়াম

ব্যায়াম সম্পর্কে দুটি সম্পূর্ণ ভুল ধারণা আছে। প্রথমটি, অনেকেই ভাবেন ব্যায়াম একটি করলেই হলো। তা হাঁটা, দৌড়ানো, সাইক্লিং, সাঁতার যা-ই হোক। দ্বিতীয়ত, ব্যায়াম করে ওজন কমালে সহজে সেই ওজন আর বাড়বে না। এ দুটি ধারণাই ভুল। একবার ব্যায়াম করে তা ছেড়ে ইচ্ছামতো খেলে ওজন বাড়বে। আর যে কোনো ধরনের ব্যায়াম করলেই ওজন কমবে, ব্যাপারটি এমনও নয়। আপনার ওজন, শারীরিক গঠন- ওজন আর সুস্থতার ওপর নির্ভর করছে কী ধরনের ব্যায়াম করলে ওজন কমবে এবং কমে যাওয়ার পর কী করতে হবে।

পানি পান করি

সুস্থ থাকার মূলমন্ত্র হচ্ছে প্রচুর পানি পান করা। আপনি যে ধরনের খাবার খাচ্ছেন, তা ভালো করে চিবিয়ে খাওয়াও বর্তমান ওজন ধরে রাখার জন্য উপকারী।

খাবারের টেবিলে সবজি

মাছ-মাংস ছাড়া খাওয়ার কথা কল্পনাও করতে পারেন না- এমন মানুষের অভাব নেই। সুস্থ থাকতে খেতে হবে সব ধরন ও রঙের খাবার। সবজি খেতে পছন্দ করেন না অনেকে। সবজি যেমন আপনার শরীরের সুস্থতা নিশ্চিত করে, তেমনি ওজনও কমায়। সব ধরনের সবজি খাওয়ার অভ্যাস কমিয়ে দিতে পারে আপনার ওজন। সুস্থও থাকবেন।

বাদ দিতে হবে কোমল পানীয়

যে কোনো ধরনের কোমল পানীয় আপনার ওজন বাড়িয়ে দেয়। ওজন কমে গেলে মানুষ যে ক'টি খাবার আবার খেতে শুরু করে, তার মধ্যে একটি হচ্ছে কোমল পানীয়। অথচ কোমল পানীয় একদিকে যেমন বাড়িয়ে দেবে ওজন, অন্যদিকে তৈরি হবে নানা ধরনের শারীরিক সমস্যা। তাই ওজন কমাতে খাবারের তালিকা থেকে বাদ দিতে হবে কোমল পানীয়।

প্রতিদিন খাবারের হিসাব

সারাদিন কী খাচ্ছেন, সেটির একটি হিসাব রাখুন। খুব ভালো হয় ডায়েরি বানিয়ে তাতে লিখে রাখতে পারলে। সম্ভব না হলে চেষ্টা করুন সারা দিনের ক্যালরি হিসাব করে খেতে।

খাবারে সময় দিন

খুব বেশি তাড়াহুড়া করে খেলে খাওয়া কমবেশি হয়ে যায়। আবার সকালের খাবার দুপুরে, দুপুরের খাবার রাতে খেলে তাতেও সৃষ্টি হয় নানা জটিলতা। তাই চেষ্টা করুন সময়মতো খেতে। তাড়াহুড়া না করে সময় নিয়ে খাবার খেতে।

বাড়ির খাবার খেতে চেষ্টা করুন

নিজে রান্না করলে খাওয়ার প্রতি এক ধরনের আগ্রহ সৃষ্টি হবে। তাতে একদিকে যেমন খেতে ভালো লাগবে, তেমনি আপনি কী খেতে চান এবং কতটা খাবেন, সেটি হিসাব করতে পারবেন সহজেই। আর রান্নার ক্ষেত্রে তেল-মসলার বিষয়টিও আপনার হিসাবে থাকবে।

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো
এই বিভাগের আরো খবর