শুক্রবার   ০৫ জুন ২০২০   জ্যৈষ্ঠ ২১ ১৪২৭   ১৩ শাওয়াল ১৪৪১

  যশোরের আলো
২৬

করোনা আক্রান্তদের পাশে দাঁড়িয়েছেন দুঙ্গা

স্পোর্টস ডেস্ক:

প্রকাশিত: ৬ এপ্রিল ২০২০  

ব্রাজিলের করোনা আক্রান্তদের পাশে দাঁড়িয়েছেন সাবেক বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক দুঙ্গা। ১৯৯৪ বিশ্বকাপ ফাইনালের পর ব্রাজিল অধিনায়ক দুঙ্গা ট্রফি হাতে গোটা মাঠ প্রদক্ষিণ করছেন, ফুটবল ইতিহাসেরই অন্যতম আলোচিত একটি ছবি। রোমারিও-বেবেতোদের সঙ্গী করে ব্রাজিলকে চতুর্থ বিশ্বকাপ এনে দিয়েছিলেন সেবার। ফাইনালে ‘শত্রু’ ছিল ইতালি।

ছাব্বিশ বছর পর আবারও আরেক ‘শত্রু’র বিপক্ষে মাঠে নেমেছেন ইতিহাসের অন্যতম সেরা এই রক্ষণাত্মক মিডফিল্ডার। পার্থক্য হলো, সেবার ‘শত্রু’ হিসেবে খেলতে নামা রবার্তো ব্যাজিও, ফ্রাঙ্কো বারেসিদের চোখে দেখেছিলেন, এবারের শত্রুকে দেখা যায় না। দেখা না গেলেও, ইতালির চেয়ে এই শত্রু কয়েক হাজার গুণ বেশি পরাক্রমশালী। চুরানব্বইয়ের শত্রু ইতালি নিজেই তো পরাস্ত হয়েছে এই অদৃশ্য শত্রুর কাছে। ইউরোপে ত্রাস ছড়িয়ে আস্তে আস্তে আঘাত হানছে ব্রাজিলেও।

সে শত্রু যে করোনাভাইরাস, সেটি নতুন করে বলে দেওয়ার প্রয়োজন নেই।

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১২ লাখ ৬০ হাজার ১০৪ জন। মৃতের সংখ্যা ৬৮ হাজার ৪১৩ জন। এশিয়া, ইউরোপ, উত্তর আমেরিকা ছাড়িয়ে করোনাভাইরাস এবার পৌঁছে গেছে লাতিন আমেরিকাতে। মৃত্যুর সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে লাতিন দেশগুলোতেও। ব্রাজিলও তাঁর ব্যতিক্রম নয়। দেশটিতে এ পর্যন্ত ৩৫৯ জন মারা গেছে বলে জানা গেছে।

করোনার কবল থেকে রক্ষা পেতে গোটা ব্রাজিল এখন অবরুদ্ধ। ফলে সবচেয়ে বেশি বিপদে পড়েছে দেশটির দরিদ্র জনগোষ্ঠী। মুখে দেওয়ার কিছু পাচ্ছে না তাঁরা, পাচ্ছে না কোনো সাহায্য। এই অবস্থায় দেশের দরিদ্র মানুষের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ব্রাজিলের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক দুঙ্গা। দশ টন খাদ্য নিয়ে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি। করোনার প্রকোপ থেকে নিজের দেশের গরিব মানুষদের বাঁচাতে আবারও নিলেন আদর্শ ‘ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডার’ এর ভূমিকা।

শুধু দশ টন খাবার দিয়েই ক্ষান্ত হননি দুঙ্গা। শিশুদের জন্য দিয়েছেন দুই হাজারের মতো ডায়াপারও। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে নিজেই তাঁর এই কর্মকাণ্ড জানিয়েছেন সবাইকে।

ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করা একটি ভিডিওতে দুঙ্গা জানিয়েছেন অদেখা এই শত্রুর বিপক্ষে নিজের লড়াইয়ের কথা, ‘বাধ্য হয়ে আমাদের অনেককে এখন এই চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে হবে। অনেক কিছু এখন করতে হচ্ছে, যা কল্পনাও করিনি আগে।’

সবাইকেই দেশের ডাকে সাড়া দিতে বলেছেন দুঙ্গা, ‘মানুষের জীবন এখন হুমকির মুখে। সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জের মুখে আমরা। এখন আমাদের মানবিক হতে হবে। মানুষকে সহযোগিতা করতে হবে। আমি আপনাদের সবাইকে চ্যালেঞ্জ জানাচ্ছি। আমরা ইতিমধ্যে দশ হাজার কেজি খাদ্য (এগারো টনেরও বেশি) সংগ্রহ করেছি। আমরা এই লড়াই চালিয়ে যাব। এখন কোনো সময় নেই নষ্ট করার মতো। এটা হেরে যাওয়ার সময় না।'

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো
এই বিভাগের আরো খবর