সোমবার   ২২ জুলাই ২০২৪   শ্রাবণ ৬ ১৪৩১   ১৫ মুহররম ১৪৪৬

  যশোরের আলো
১৩৬

দুর্বৃত্তদের কখনো কোনো দল বা নেতা থাকে না: মাশরাফি

নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩  

নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (অব.) এ এম আব্দুল্লাহর গাড়ি বহরে হামলার ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক এবং নড়াইল-২ আসনের সংসদ সদস্য মাশরাফি বিন মুর্তজা। 

বুধবার (১৩ সেপ্টেম্বর) রাতে নিজের ফেসবুক পেইজে হামলার নিন্দা জানিয়ে একটি পোস্ট দিয়েছেন মাশরাফি। তার ব্যক্তিগত সহকারী (পিএস) জামিল আহমেদ সানি বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ফেসবুক পোস্টে মাশরাফি বলেন, গণতান্ত্রিক দেশে আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়ন চিত্র জনগণের কাছে তুলে ধরা আমাদের সবারই দায়িত্ব ও কর্তব্য। আজ বিকালে(১৩ সেপ্টেম্বর) শাহবাদ ইউনিয়নের আলোকদিয়া বাজারে জেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (অব.) এ এম আব্দুল্লাহ ভাইয়ের গাড়িবহরে যে ন্যাক্কারজনক হামলার ঘটনা ঘটিয়েছে দুর্বৃত্তরা, তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।

এ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের শনাক্ত করে সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করার জোর দাবি জানাই পুলিশ প্রশাসনের কাছে। 

তিনি বলেন, আর একটি কথা না বললেই নয়, দুর্বৃত্তদের কখনো কোনো দল, কোনো নেতা থাকে না। তারা সবসময় সুযোগের অপেক্ষায় থাকে দুর্বৃত্তায়নের মাধ্যমে তাদের নিজস্ব ফায়দার আশায়।

তিনি আরও বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমার উপর আস্থা রেখে নৌকা প্রতীকে নির্বাচনের সুযোগ দিয়েছিলেন আর নড়াইল-২ আসনের জনগণ ও নেতাকর্মীরা আমাকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত করে আপনাদের সেবা করার সুযোগ দিয়েছেন। আপনারা এটা নিশ্চয়ই অবগত আছেন বিগত সাড়ে ৪ বছরে আপনাদের জন্য কাজ করার চেষ্টা করার পাশাপাশি আমি কখনো কোন প্রতিহিংসামূলক রাজনীতি করিনি আর সেটাকে প্রশ্রয়ও দেইনি। আর ভবিষ্যতেও এ ধরনের অন্যায় কাজকে প্রশ্রয় দেব না ইনশাআল্লাহ।

এর আগে বুধবার দুপুরে নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (অব.) এ এম আব্দুল্লাহ লোহাগড়া থেকে একটি মাইক্রোবাস ও দুই শতাধিক মোটরসাইকেল বহর নিয়ে নড়াইল সদরের উদ্দেশে রওনা করেন। বিকাল ৫টার দিকে শাহাবাদ ইউনিয়নের আলোকদিয়া বাজারে তার গাড়িবহর পৌঁছালে একদল দুর্বৃত্ত ধারালো অস্ত্র ও লাঠিসোঁটা নিয়ে হামলা চালায়। 

লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (অব.) এ এম আব্দুল্লাহ অভিযোগ করে বলেন, গাড়িবহর নিয়ে নড়াইল সদরের শাহাবাদ, মাইজপাড়া, হবখালি ইউনিয়ন হয়ে লোহাগড়ায় ফেরার কথা থাকলেও শাহাবাদ ইউনিয়নের আলোকদিয়া বাজারে পৌঁছালে সন্ত্রাসীরা আমাদের ওপর হামলা করে।

নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোস বলেন, এই হামলার তীব্র নিন্দা জানাই। নির্বাচনকে সামনে রেখে সুসংগঠিত নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনসহ দলের মনোবল ভাঙতে জামায়াত-বিএনপি অধ্যুষিত এলাকায় এ ধরনের হামলা চালানো হয়েছে।

এ হামলার নেপথ্যের ব্যক্তিদের খুঁজে বের করে বিচারের আওতায় আনার জন্য প্রশাসনের কাছে জোর দাবি জানান এই নেতা। 

এ বিষয়ে জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার(ক্রাইম এন্ড অপস.) তারেক আল মেহেদী বলেন, লেফটেন্যান্ট কমান্ডার (অব.) এ এম আব্দুল্লাহকে বহনকারী মাইক্রোবাসে হামলার ঘটনা ঘটেছে। গাড়ির গ্লাস ভেঙে তার সফরসঙ্গীদের কয়েকজন কিছুটা আহত হয়েছেন। ঘটনা জানার সঙ্গে সঙ্গেই পুলিশের একাধিক টিম সেখানে পাঠানো হয়।

তিনি আরও জানান, হামলার সময় একটি মোটরসাইকেল ঘটনাস্থলে পড়ে থাকায় পুলিশ উদ্ধার করে প্রকৃত মালিকের কাছে হস্তান্তর করে। লিখিত অভিযোগ পেলে তদন্তসাপেক্ষে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব।

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো
এই বিভাগের আরো খবর