বৃহস্পতিবার   ০১ ডিসেম্বর ২০২২   অগ্রাহায়ণ ১৬ ১৪২৯   ০৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

  যশোরের আলো
সর্বশেষ:
আওয়ামী লীগ কখনো সন্ত্রাস প্রশ্রয় দেয় না এইডস রোগীদের জন্য যশোরে হচ্ছে এআরটি সেন্টার যশোরে খেজুরের রস আহরণে ব্যস্ত সময় পার করছেন গাছিরা লিসবন বিশ্ববিদ্যালয়ে সম্মাননা পেলেন বাংলাদেশি বিজ্ঞানী সোহেল মুক্তিযুদ্ধের নয় মাস অক্ষত ছিল যে পতাকা খালেদা জিয়া সমাবেশে যোগ দিলে আদালত ব্যবস্থা নেবেন
৫০

বিয়ের চিঠিতে বদলে যাক নিমন্ত্রণের সংজ্ঞা

প্রকাশিত: ২৪ নভেম্বর ২০২২  

বিয়ের আমন্ত্রণ জানাবেন আর চিঠি দেবেন না তা কি হয়। দিনে দিনে চিঠি বিয়ের অবিচ্ছেদ্য অংশ হয়ে উঠেছে। আমন্ত্রিত অতিথিদের কাছে পাত্র-পাত্রীর যাবতীয় খুঁটিনাটি, বিয়ের স্থান ও সময় জানানোর মাধ্যম হিসেবে এখনও এর কদর সবচেয়ে বেশি।

ইদানিং বিয়ের আমন্ত্রণপত্রের সঙ্গে নানা উপহার দেওয়ার চল হয়েছে। কখনও কার্ডের সঙ্গে চারাগাছ, কখনও ছোট্ট একটা মূর্তি অথবা ছোট্ট একটি পাখির খাঁচা— থাকছে এমন নানা চমক। এমনই কিছু বিরল অথচ অন্য রকম আমন্ত্রণপত্রের ভাবনা তুলে ধরা হলো।

কিউরিও বক্স : সাধারণ বাক্স বা কাচের বাক্স হতে পারে। বিয়ের হ্যাশট্যাগ বা লোগো, এমনকি নাম লেখা বাক্সও ব্যবহার করা যেতে পারে। প্রয়োজনে অতিথি এই বাক্স পুনর্ব্যবহার করতে পারবেন।

পাখির খাঁচা : সুসজ্জিত ছোট্ট পাখির খাঁচার সঙ্গে জোড়া কার্ড। যেমন দেখতে অসাধারণ, তেমনই বেশ অন্যরকম উপহার হিসেবে নজর কাড়বে নিমন্ত্রিত অতিথির।

কোস্টার : কোস্টার সেটও দিতে পারেন আমন্ত্রণ উপহার হিসেবে। অথবা কাস্টমাইজড কোস্টারও দিতে পারেন, যাতে পাত্রপাত্রীর নাম, বিয়ের দিন, স্থান খোদাই করা থাকবে। উপহারে নতুনত্ব আনতে দিতে পারেন এটি।

লাগেজ ট্যাগ : উপহার হিসাবে লাগেজ ট্যাগ? শুনতে অবাক লাগলেও এখন এটাই ট্রেন্ডের পথে হেঁটে যাচ্ছে ক্রমশ। বিভিন্ন উক্তি লেখা ট্যাগ ব্যবহার করতে পারেন অথবা পুরো ট্যাগটিকেই আমন্ত্রণপত্র বানিয়ে ফেলতে পারেন। সঙ্গে থাকুক নানা ডিজাইন।

সুগন্ধি মোমবাতি : সুরুচিপূর্ণ এবং আভিজাত্যের ছোঁয়ায় এই সুগন্ধি মোমবাতির মনমাতানো গন্ধ বারবার আপনার কথা মনে করিয়ে দেবে অতিথিকে। মোমবাতির কৌটার গায়ে লেখা থাকবে বিয়ে সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য।

বীজ : চারা নয়, এখন গাছের বীজকেই উপহার হিসেব বেছে নিচ্ছেন বেশির ভাগ মানুষ। একদিকে যেমন সুবহ, তেমনই অন্য দিকে ভালো থাকার সুবিধাও রয়েছে। আপনার স্বপ্নের বিয়েতে পরিবেশবান্ধব আমন্ত্রণ জানাতেই পারেন।

শো পিস : ছোট্ট মানানসই মূর্তি অথবা অন্য কোনও শো পিস আপনার আমন্ত্রণের সংজ্ঞা বদলে দিতে পারে। কার্ডের সঙ্গে আলাদা ভাবে রাখা যেতে পারে অথবা শো পিসের সঙ্গেই কার্ডটি জুড়ে দেওয়া যেতে পারে।

হ্যান্ড পেন্টেড বক্স : শিল্পের গুরুত্ব সবসময়ই বেশি। উপহার হিসেবে তালিকায় রাখা যেতে পারে কাঠের ছোট বাক্স, যার উপরে হাতে আঁকা নকশা ও অন্যান্য নানা কারুকার্য থাকবে। কার্ডটি বাক্সের ভেতরে রাখা যেতে পারে। সঙ্গে থাকুক নানা ধরনের রঙিন পাথর।

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো