বুধবার   ০৩ জুন ২০২০   জ্যৈষ্ঠ ১৯ ১৪২৭   ১০ শাওয়াল ১৪৪১

  যশোরের আলো
২৫৪

মাদকের কূফল প্রচারে সরকারের নতুন পদক্ষেপ

প্রকাশিত: ১৮ নভেম্বর ২০১৮  


মাদক ব্যবসায়ী ও মাদকসেবিদের বিরুদ্ধে সাড়াশি অভিযানের পাশাপাশি এবার মাদক ব্যবহারের কুফল জানাতে নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় দুটি এলইডি কিয়স্ক (সম্প্রচারের জন্য টিভি মনিটর) সংগ্রহ করেছে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর। এতে সর্বমোট ব্যয় হয়েছে ৮০ (প্রতিটি ৪০ হাজার) হাজার টাকা। এসব মনিটর দিয়ে জনসাধারণকে মাদকের কূফল সম্পর্কে মাদক বিরোধী শর্ট ফিল্ম, টিভিসি ও বিভিন্ন ধরণের স্লোগান প্রচার করা হবে।

এ সম্পর্কে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুরক্ষা সেবা বিভাগের (মাদক অনুবিভাগ) অতিরিক্ত সচিব মো. আতিকুল হক জানান, মাদকের কুফল সম্পর্কে জনসাধারণকে সচেতন করার লক্ষ্যে এলইডি কিয়স্ক মনিটর কেনা হয়েছে। ভবিষ্যতে দেশের জনবহুল স্থানে এমন আরো কিছু মনিটর স্থাপনের পরিকল্পনা রয়েছে। প্রথম পর্যায়ে রাজধানীর মহখালীতে বাংলাদেশ ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজ ক্যাম্পাসে একটি মনিটর স্থাপন করা হয়েছে। এতে সেখানে যেসব ছাত্র-ছাত্রী রয়েছে তার এই মনিটরের মাধ্যমে প্রদর্শিত শর্ট ফিল্ম এবং টিভিসির মাধ্যমে মাদকের কুফল সম্পর্কে কিশোর বয়সেই জানতে পারবে। এতে তারা সচেতন হবে। এবং তারা তাদের বয়:সন্ধির সময় থেকেই মাদকের কুফল সম্পর্কে জানতে পারবে। ফলে তারা মাদকের ভয়াভহ ক্ষতিকর প্রভাব থেকে নিজেকে মুক্ত রাখতে পারবে। দ্বিতীয়টি সচিবালয়ে প্রবেশ পথে (২ নং গেটের বিশ্রামাগরে) স্থাপন করা হবে।
 
এই অতিরিক্ত সচিব আরো বলেন, সচিবালয়ে প্রবেশের আগে অনেকেই দীর্ঘ সময় পাসের জন্য অপেক্ষা করেন। ফলে স্বভাবতই তারা বিরক্ত হয়ে যান। কিন্তু যাখনই এই এলইডি কিয়স্ক স্থাপন করে মাদকের ক্ষতিকর না না বিষয়ের উপর শর্ট ফিল্ম, টিভিসি (টেলিভিশন কমার্শিয়াল)সহ বিভিন্ন স্লোগান প্রদর্শন করা হবে। এতে দর্শনার্থীদের বিরক্তি লাঘবের পাশাপাশি মাদকের কূফল সম্পর্কে বস্তারিত জানতে পারবে। ফলে নিজেরা সচেতন হবে এবং পরিচিত অন্যদেরও মাদকের ক্ষতিকর প্রভাব বিষয়ে সচেতন করতে পারবে।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মো. রবিউল ইসলাম জানান, প্রথম পর্যায়ে দেশের বিভাগীয় শহর এবং পরবর্তী ধাপে জেলা সদরসহ উপজেলার যেসব স্থানে বেশি মানুষের সমাগম হয় সেসব স্থানে এই কিয়স্ক স্থাপন করা হবে। সহজেই স্থানান্তর যোগ্য এসব মনিটরে খুব সহজেই পেনড্রাইভের মাধ্যমে প্রোগ্রামগুলো ননস্টপ চালানো যাবে। এরই মধ্যে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে এই মেশিন স্থাপনের জন্য এমওইউ স্বাক্ষর হয়েছে। অচিরেই সেখানে এলইডি কিয়স্ক স্থাপন করা হবে।
 

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো
এই বিভাগের আরো খবর