সোমবার   ০৩ অক্টোবর ২০২২   আশ্বিন ১৭ ১৪২৯   ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

  যশোরের আলো
সর্বশেষ:
যশোরে আগাম শীতকালীন সব‌জি চাষ, ভালো দামে খু‌শি কৃষক দুর্গাপূজা উপলক্ষে বেনাপোলে ৪ দিন বন্ধ আমদানি-রফতানি ঝিনাইদহে ছড়িয়ে পড়ছে লাম্পি স্কিন ডিজিজ, দিশেহারা খামারিরা ঝিনাইদহ পৌরসভার মেয়র ও কাউন্সিলরদের শপথ গ্রহণ জিনপিংকে শুভেচ্ছা জানিয়ে হামিদ-হাসিনার চিঠি যশোর ভবদহের ধলিয়ার বিলে নির্মিত হবে ইপিজেড
২৯

‘বঙ্গমাতা নারীর ক্ষমতায়নের প্রকৃত পথ প্রদর্শক’

প্রকাশিত: ৭ আগস্ট ২০২২  

মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেছেন, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব স্বাধীন বাংলাদেশে নারীদের কর্মসংস্থানসহ নারীর উন্নয়ন ও ক্ষমতায়নের প্রকৃত পথ প্রদর্শক।

শনিবার রাজধানীর দোয়েল চত্বর সংলগ্ন বাংলাদেশ শিশু একাডেমির সম্মেলনকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন। বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব’র ৯২তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন ও ‘বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব পদক-২২’ প্রদানের বিষয়ে এ সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব ছিলেন বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য সহধর্মিণী ও সহযোদ্ধা। বঙ্গমাতা বেগম মুজিব বাঙালি জাতির স্বাধীনতা সংগ্রামের প্রতিটি পদক্ষেপে বঙ্গবন্ধুকে সক্রিয় সহযোগিতা করেছেন ও প্রেরণা দিয়েছেন। মহান স্বাধীনতা অর্জনে এই মহীয়সী নারীর রয়েছে গৌরাবজ্জ্বল ভূমিকা।

তিনি আরো বলেন, বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব লোকচক্ষুর অন্তরালে থেকে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম, মুক্তিযুদ্ধ এবং স্বাধীনতার পর দেশ পুনর্গঠনে রেখে গেছেন অনন্য ভূমিকা। নারীদের অর্থনৈতিক ক্ষমতায়নে দক্ষতা এবং সক্ষমতা বৃদ্ধি ও কুটির শিল্পসহ বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণের ক্ষেত্রেও বঙ্গমাতার অবদান অনস্বীকার্য।

ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বলেন, দেশপ্রেম, রাজনৈতিক দূরদর্শিতা, সাহসিকতা, ত্যাগ ও অনুপ্রেরণার উৎস বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব’র জন্মদিনটি স্মরণীয় রাখার লক্ষ্যে সরকারিভাবে প্রতিবছর ৮ আগস্ট ‘ক’ শ্রেণির জাতীয় দিবস হিসেবে উদযাপন করা হচ্ছে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, বঙ্গমাতার অবদানকে চিরস্মরণীয় করার লক্ষ্যে প্রতিবছর আটটি ক্ষেত্রে নারীদের অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ ‘ক’ শ্রেণীভুক্ত সর্বোচ্চ জাতীয় পদক ‘বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব’ পদক প্রদান করা হবে। এ বছর রাজনীতি, অর্থনীতি, শিক্ষা, সমাজসেবা এবং স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধ ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ পাঁচজন বিশিষ্ট নারীকে ‘বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব পদক-২০২২’ প্রদান করা হচ্ছে।

আগামী ৮ আগস্ট রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব’র ৯২ তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন ও ‘বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব পদক-২২’ প্রদান উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিব নিজ জীবনের কঠিন দুঃসময়েও অসহায় মানুষকে আর্থিক সহায়তা করেছেন এবং পাশে দাঁড়িয়ে সাহস যুগিয়েছেন। বঙ্গমাতার এই মহানুভবতাকে স্মরণ করে তার জন্মদিনে অস্বচ্ছল নারীদের কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে সেলাই মেশিন ও আর্থিক অনুদান প্রদান করে আসছে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো
এই বিভাগের আরো খবর