মঙ্গলবার   ০৯ আগস্ট ২০২২   শ্রাবণ ২৪ ১৪২৯   ১০ মুহররম ১৪৪৪

  যশোরের আলো
সর্বশেষ:
যশোরের পুলিশ সুপারসহ ৪ পুলিশ কর্মকর্তাকে পুরস্কৃত বাংলাদেশকে ৩০ কোটি ডলার ঋণ দিচ্ছে বিশ্বব্যাংক বিভিন্ন রুটে ভাড়ার নতুন তালিকা প্রকাশ করলো বিআরটিএ ঝিনাইদহে কৃষকের মাঝে কৃষি-পল্লী ঋণ বিতরণ দেশীয় কিটে ২৫০ টাকায় করা যাবে করোনা পরীক্ষা গম-ভুট্টা চাষিরা কম সুদে পাবেন ১ হাজার কোটি টাকার ঋণ
৩৮

পদ্মা সেতু উদ্বোধন ঘিরে সতর্কাবস্থানে যশোরের পুলিশ

প্রকাশিত: ২৪ জুন ২০২২  

২৫ জুন শনিবার। খুলে যাবে স্বপ্নপূরণের নতুন এক দিগন্ত। পদ্মা সেতু উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এই অনুষ্ঠান ঘিরে তিন স্তরের নিরাপত্তা বলয়ে এসেছে গোটা দেশ। যশোরাঞ্চলেও কঠোর নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সজাগ রয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ঘিরে যশোরে মাঠ পর্যায়ে সতর্ক অবস্থানে কাজ করছে পুলিশসহ আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার বিভিন্ন ইউনিট। পুলিশের সকল ছুটি বাতিল করা হয়েছে। এর আগে দুই ধাপের নিরাপত্তায় নানা অভিযান সফলভাবে করেছে পুলিশ। আটক হয়েছে সন্ত্রাসী, উদ্ধার হয়েছে অস্ত্র মাদকসহ বিভিন্ন নাশকতা মামলার বেশ কয়েকজন আসামি।

জানা গেছে, গত ২১ জুন থেকে কঠোরভাবে মাঠে নেমেছে যশোর জেলা পুুলিশ ও অন্য আইন প্রয়োগকারী সংস্থার যশোরের ইউনিটগুলো। পুলিশ হেড কোয়ার্টার্সের নির্দেশনা অনুযায়ী আগামী ২৬ জুন পর্যন্ত চলবে পুলিশি অ্যাকশান।

যশোর জেলা পুলিশের সূত্র জানিয়েছে, কাঙ্খিত স্বপ্ন বাস্তবায়নে কোনো দুষ্টু চক্র কিংবা ঈর্ষান্বিত কোনো মহল যাতে কোনো প্রকার অনাকাঙ্খিত ঘটনা ঘটাতে না পারে সে জন্য গত ৭ জুন থেকে মাঠে নামে বাংলাদেশ পুলিশ। একই নির্দেশনায় যশোর জেলা পুলিশও ৭ জুন থেকে নানামুখি অভিযান শুরু করে যশোরে। চলে ১৩ জুন পর্যন্ত। সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, নাশকতা ঘটাতে পারে এমন সব লোকজনকে আটক করতে চলে অভিযান। 

উদ্ধার হয় মাদক, নাশকতা দ্রব্য বোমা, আটক হয় বিভিন্ন ক্যাটাগরির অপরাধী। যশোরাঞ্চলের মাঠ পর্যায়ে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়। এরপর যশোর জেলা পুলিশ দ্বিতীয় ধাপের নিরাপত্তায় বিশেষ অভিযান শুরু করে ১৪ জুন থেকে, চলে ২০ জুন পর্যন্ত। 

আর ২১ জুন থেকে গোটা দেশের সাথে যশোরকেও আনা হয়েছে তৃতীয় ধাপের নিরাপত্তা বলয়ে। পুলিশ সুপার প্রলয় কুমার জোয়ারদারের নেতৃত্বে জেলার সকল থানা, ফাঁড়ি, তদন্ত কেন্দ্রসহ জেলা গোয়েন্দা শাখাসহ সকল ইউনিট শুরু করেছে বিশেষ অভিযান।

যশোর কোতোয়ালি থানা সূত্র জানিয়েছে, পদ্মা সেতু উদ্বোধন ইস্যুতে যশোরের গুরুত্বপূর্ণ সরকারি বেসরকারি স্থাপনা, শহরের ব্যস্ত সড়ক, ব্যস্ত মার্কেট, গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা, বিভিন্ন আবাসিক, ছাত্র মেস এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ ফোর্স সতর্ক অবস্থানে রয়েছে। 

২১ জুন থেকে শুধু কোতোয়ালি থানারই ৩০ টিম মাঠে রয়েছে। পুলিশের সকল ছুটি বাতিল করা হয়েছে আগামী ২৬ জুন পর্যন্ত। আর ২৬ পর্যন্ত আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলো টহল জোরদার অব্যাহত রাখবে। কোথাও জটলা পাকানো, বিশৃংখলভাবে চলাফেলা করা, সন্দেহভাজন লোকজনকে আটকও করা হবে বলে জানিয়েছেন পুলিশের ঊর্ধ্বতন। কোনো অশুভ চক্র যাতে কোনো ধরণের নাশকতা ঘটাতে না পারে সে জন্য সতর্ক অবস্থানে থাকার নির্দেশনাও দেয়া হয়েছে সিনিয়র অফিসারদের।

সূত্র জানায়, যশোর শহরের অনেকগুলো স্পটসহ এ অঞ্চলের বিভিন্ন এলাকায় আইনশৃংখলা বাহিনীর নজরদারি বাড়ানো হয়েছে। যশোর শহরের বিমানবন্দর, শিক্ষা বোর্ড, গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা এলাকায় টহল চলেছে। এছাড়া জনগুরুত্বপূর্ণ ও ব্যস্ত এলাকা দড়াটানা, নিউমার্কেট, মণিহার এলাকা, চাঁচড়া চেকপোস্ট, ধর্মতলা, আরবপুর মোড়, পালবাড়ী মোড়, মুজিব সড়ক, গাড়ীখানা রোড, এম.কে রোড, আর এন রোড, রেলরোড, সদর হাসপাতাল রোড, চিত্রারমোড়, জর্জ কোর্ট মোড়, জেলখানা মোড়, কাঠেরপুল-বড়বাজার এলাকাসহ আরও কয়েকটি এলাকায়ও পুলিশ জোরালো নজরদারিতে রেখেছে। এছাড়া এ অঞ্চলের আরও কয়েকটি এলাকা চিহ্নিত করে খোঁজ খবর নেয়া হচ্ছে।

২৪ ও ২৫ জুন থেকে যশোর শহর ও শহরতলীর গুরুত্বপূর্ণ মোড়ে সতর্ক অবস্থান নেবে পুলিশ। চেকপোস্ট বসিয়ে গাড়িতে তল্লাশী করবে। পুলিশের পাশাপাশি সতর্ক অবস্থায় মাঠে থাকবে র‌্যাব, পুলিশের অন্য সব ইউনিট ও গোয়েন্দা সদস্যরা। ইতিমধ্যে যশোরাঞ্চলের বিভিন্ন স্পটে গোয়েন্দা নজরদারিও জোরদার করা হয়েছে ২১ জুন থেকে।

পদ্মা সেতু ইস্যুতে চলমান ওই অভিযানে মাদক প্রতিরোধ, মাদক ব্যবসায়ী আটক, কিশোর অপরাধীদের মুলোৎপাটনে কাজ করে পুলিশ। যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বেলাল হোসাইনের নেতৃত্বে অভিযান চলছে যশোর কোতোয়ালি এলাকায়। এছাড়া জেলার অন্যসব সিনিয়র অফিসার দিয়ে অভিযান শুরু হয়েছে। থানার ওসি, ইন্সপেক্টর তদন্ত, ইন্সপেক্টর অপারেশনসহ চৌকস অফিসাররা কাজ করছে মাঠ পর্যায়ে। ২৬ জুন পর্যন্ত আইন শৃঙ্খলা সর্বোচ্চ কঠোর রাখতে মাঠে রয়েছে পুলিশ।

এ ব্যাপারে যশোর কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ তাজুল ইসলাম ও জেলা গোয়েন্দা শাখার অফিসার ইনচার্জ রুপন কুমার সরকার জানিয়েছেন, বহু কাঙ্খিত পদ্মা সেতু উদ্বোধন জাতির জন্য মাইল ফলক। গোটা দেশই কঠোর নিরাপত্তা বলয়ের মধ্যে রয়েছে। যশোরের বিশেষ অভিযান চলমান রয়েছে তৃতীয় ধাপের। 

যশোরে অপ্রীতিকর কিছুই ঘটতে দেয়া হবে না। কোনো অশুভ চক্র যেনো অপ্রীতিকর কোনো ঘটনা ঘটাতে না পারে সে জন্যই মূলত এই বিশেষ অভিযান। সকল অফিসারকে সতর্ক থাকার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে বলেও  জানান তারা।

  যশোরের আলো
  যশোরের আলো
এই বিভাগের আরো খবর